যে বিষয়ে ক্ষমা চেয়েছেন শাবিপ্রবি ভিসি | Sylhet i News
মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২, ০৯:৩৪ পূর্বাহ্ন



আই নিউজ ডেস্ক ::

প্রকাশ ২০২২-০১-২৪ ০৯:২৮:২৫
যে বিষয়ে ক্ষমা চেয়েছেন শাবিপ্রবি ভিসি

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের নারী শিক্ষার্থীদের নিয়ে মন্তব্যের বিষয়ে জাবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ। এসময় তিনি একইসঙ্গে তার এ মন্তব্যকে এডিট বলে দাবি করেন।

সোমবার (২৪ জানুয়ারি) বেলা ১১.৫৯ মিনিটে জাবি উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামের কাছে ফোন করে দুঃখ প্রকাশ করে ক্ষমা চেয়েছেন অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ কার্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক মহিউদ্দিন আহমেদ স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানা যায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ ফোন কলে বলেন, ‘‘তাঁর বক্তব্য সম্পাদনা (এডিট) করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়ানো হয়েছে। এতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মনে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। একইসাথে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক এবং সংশ্লিষ্ট সকলেই আহত হয়েছেন। এ বিষয়টি তিনি অনুধাবন করেছেন।’’

বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের উদার ও প্রগতিশীল শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা ক্ষমা করে দেবে বলে অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আশা প্রকাশ করেন।

শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের চলমান আন্দোলনের মধ্যে বিশ্ববিদ্যালয়টির উপাচার্যের একটি বক্তব্য ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। ‘জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মেয়েদের সহজে কেউ বউ হিসেবে নিতে চায় না’ এমন একটি মন্তব্য ঘিরে নতুন বিতর্কে জড়ান অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন। গত মঙ্গলবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অডিওটি ভাইরাল হয়।

অডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে বিষয়টি নজরে আসে অধ্যাপক ফরিদেরও। এ বিষয়ে তিনি বলেছেন, সম্প্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া অডিওটি এডিট করা। এ ধরনের কোনো মন্তব্য তিনি করেননি।

পরে শাবিপ্রবি উপাচার্যের এ ধরনের মন্তব্যে ক্যাম্পাসে ক্যাম্পাসে নতুন করে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। এর প্রতিবাদে সরব হয়েছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরাও। বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্র সংগঠনগুলোর পক্ষ থেকেও বিষয়টি নিয়ে প্রতিবাদ জানানো হয়েছে। পরে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতিও এই বক্তব্যের নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে।

আইনিউজ/এসএম

ফেসবুক পেইজ