নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে ১১ জনকে সাজা | Sylhet i News
শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ০৮:২১ পূর্বাহ্ন



আই নিউজ ডেস্ক ::

প্রকাশ ২০২২-০৬-১৫ ০৯:২০:২৯
নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে ১১ জনকে সাজা

কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) নির্বাচনে প্রভাব বিস্তার, আচরণবিধি লঙ্ঘনসহ বিভিন্ন অভিযোগে ১১ জনকে সাজা প্রদান করা হয়েছে। আজ বুধবার তাঁদের এই সাজা দেওয়া হয়।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, কুসিক নির্বাচনে নগরীর বজ্রপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশে নির্বাচন আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে দুই বহিরাগতকে সাত দিনের কারাদণ্ড প্রদান করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাহফুজা মতিন। নগরীর ২৩ নম্বর ওয়ার্ডে স্থানীয় ক্ষমতা ব্যবহার বরে নির্বাচন কার্যক্রম প্রভাবিত করার অপরাধে কে এম দিদার হোসেন (২৮) নামে এক ব্যক্তিকে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. জিয়াউর রহমান। নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগে একজনকে তিন দিনের কারাদণ্ড দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শুভাশিস ঘোষ।

নগরীর ৩ নম্বর ওয়ার্ডের পিটিআই কেন্দ্রে ২ জনকে আচরণবিধিমালা ভঙ্গ করায় তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাহুল চন্দ। নগরীর ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের বড় পুকুরপাড় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে বহিরাগতদের উপস্থিতি ও ভোটারদের প্রভাবিত করার অপরাধে দুজনকে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ফোরকান এলাহি অনুপম। এ ছাড়া নগরীর হোচ্ছামিয়া লুৎফুন নেছা উচ্চ বালিকা বিদ্যালয় কেন্দ্রে বহিরাগতদের অনাকাঙ্ক্ষিত প্রবেশ ও প্রভাব বিস্তারের অপরাধে একজনকে সাত দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করেন তিনি।

এ ছাড়া নগরীর ১ নম্বর ওয়ার্ডের বিষ্ণুপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই প্রার্থীর এজেন্টকে জরিমানা করা হয়েছে। অনুমতি না নিয়ে ভোট কক্ষ থেকে বের হয়ে ভোটার আনার অভিযোগে এ জরিমানা করা হয়। কুমিল্লা সদর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জাকিয়া আফরিন এ জরিমানা করেন।

জাকিয়া আফরিন বলেন, ‘নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনসহ বিভিন্ন অভিযোগে তাঁদের এ জেল ও জরিমানা প্রদান করা হয়। বিভিন্ন ওয়ার্ডে নির্বাচনী বিধি রক্ষায় কাজ করছেন ম্যাজিস্ট্রেটরা।’ 

আইনিউজ/এসএম

ফেসবুক পেইজ