বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০৩:১৭ পূর্বাহ্ন



Repoter Image

লিমন তালুকদার:

প্রকাশ ১৯/০৯/২০২৩ ০১:৫৭:৩২
১৯ বছর থেকে চানাচুর বিক্রি করছেন জকিগঞ্জের ফারুক

তিন চাকার ভ্যানে করে ঘুরে বেড়ান বিভিন্ন বাজারে বাজারে। বিক্রি করেন সুস্বাদু চানাচুর। বেশির ভাগ সময় দেখা যায় একটি বিদ্যালয়ের সামনেই পসরা সাজান তিনি। সেখানে চানাচুর খেতে ভিড় করেন বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন পেশার মানুষ। দীর্ঘ ১৯ বছর থেকে চানাচুর বিক্রিকেই পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন তিনি। তার হাতের তৈরি চানাচুরে রয়েছে বিশেষ স্বাদ।

বলছিলাম জকিগঞ্জের বীরশ্রী ইউনিয়নের পিয়াইপুর গ্রামের ফারুক আহমদের কথা। তিনি পিয়াইপুর গ্রামের আব্দুল করিম এর ছেলে। ব্যক্তিগত জীবনে তিনি ২ ছেলে ও ৩ মেয়ের জনক।

জানা যায়, ফারুক আহমদ দীর্ঘ ১৯ বছর থেকে চানাচুর বিক্রি করেই জীবিকাহ নির্বাহ করছেন। বেশিরভাগ সময় বাড়ির পাশের গুরুসদয় স্কুল এন্ড কলেজ এলাকায় দেখা যায় তাকে। সেখানে রয়েছে বেশ সুখ্যাতি। তার হাতের তৈরি চানাচুরে রয়েছে বিশেষত্ব। এ চানাচুর খায়নি এমন শিক্ষার্থী খুঁজে পাওয়া বিরল। শুধু গুরুসদয় বিদ্যালয়ের পাশেই নয়! তাকে দেখা যায় উপজেলার বিভিন্ন বাজারে। মাসুম বাজার সহ বিভিন্ন বাজারে বাজারে ঘুরে বিক্রি করেন চানাচুর। সব খানেই রয়েছে গ্রামের মত সুখ্যাতি।

গুরুসদয় স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থী নাঈম আহমদ ও কাদির আহমদ জানায়, ‘প্রতিদিনই এখানে বসেন ফারুক আহমদ। বেশ সুস্বাদু হওয়ায় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা তাঁর চানাচুর খেতে বেশ আগ্রহী।’

আমেরিকা প্রবাসী সোলেমান তালুকদার জানান, ‘স্কুলে থাকতে ফারুক ভাইয়ের হাতের চানাচুর খাইতাম। খুব মজা লাগতো, এখন খুব মিস করি ফারুক ভাইর চানাচুর।’

আলাপকালে চানাচুর বিক্রেতা ফারুক আহমদ জানান, এ পেশায় আছি প্রায় ১৯ বছর থেকে। নিজ এলাকাসহ আশপাশের বাজারে চানাচুর বিক্রি করেই চলছে। তবে সবার কাছে তার চানাচুরের প্রশংসায় তিনিও উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেন।

সিলেট আই নিউজ / এসএম

মাই ওয়েব বিট

আপনার ওয়েবসাইটের ভিজিটর মনিটরিং করার জন্য এটা ব্যবহার করতে পারেন, এটি গুগল এনালাইটিক এর মত কাজ করে।

ফেসবুক পেইজ