বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৫:৪৪ অপরাহ্ন



Repoter Image

আই নিউজ ডেস্ক ::

প্রকাশ ১০/০৭/২০২৪ ১১:৪৭:৫৯

সিলেট নগরে ফের সক্রিয় হয়ে উঠেছে ঝাঁপটা পার্টির সদস্যরা। মধ্যরাত থেকে ভোর রাত পর্যন্ত সড়কে অবস্থান থাকে তাদের। ভয় দেখিয়ে লুটে নিচ্ছে যাত্রীদের সবকিছু। নগরীর দক্ষিণ সুরমার অপরাধ প্রবণ এলাকায় তাদের উৎপাত বেশি বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগীরা। সক্রিয় হয়েছে পুলিশ। ইতিমধ্যে নগরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ঝাঁপটা পার্টির ৫ সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের মিডিয়া কর্মকর্তা অতিরিক্ত উপ-কমিশনার মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম জানিয়েছেন- গত সোমবার ভোর ৫টার দিকে দক্ষিণ সুরমা থানাধীন ক্বীন ব্রিজের দক্ষিণ পাশে ৩ ছিনতাইকারীর খপ্পরে পড়েন গোয়াইনঘাট উপজেলার গুরকুচি গ্রামের মো. আজিজুর রহমানের ছেলে আব্দুল আহাদ ও তার চাচাতো ভাই আলী আহমদ। তাদেরকে চাকু দেখিয়ে ছিনতাইকারীরা মোবাইল ফোন ও নগদ ৫ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয়। এ সময় তাদের চিৎকারে পথচারীরা এক ছিনতাইকারীকে ধরতে পারলেও দু’জন পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে দক্ষিণ সুরমা থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে আটক ছিনতাইকারীকে পথচারীরা পুলিশের কাছে সোপর্দ করেন।

পরে আটক ছিনতাইকারীর দেয়া তথ্যমতে হুমায়ুন রশীদ চত্বর সংলগ্ন শাহজালাল ব্রিজের দক্ষিণ পাশ থেকে আরও দুই ছিনতাইকারীকে আটক করে পুলিশ। আটক ৩ ছিনতাইকারী হলো- সুনামগঞ্জ জেলার শান্তিগঞ্জ উপজেলার জাহানপুর গ্রামের আব্দুল মালেকের ছেলে আল-আমিন লাল্লু, দিরাই উপজেলার ইসলামপুর গ্রামের রতন মিয়ার ছেলে মিলন মিয়া ও হবিগঞ্জ জেলার আজমিরীগঞ্জ থানার শরীফনগর গ্রামের মৃত সেলিম আহমদের ছেলে মো. রাকিব আহমদ।

আটকের সময় ছিনতাইকারীদের কাছ থেকে দুটি চাকু জব্দ ও ছিনতাইয়ের শিকার আব্দুল আহাদের মোবাইল ফোন-টাকা উদ্ধার করে পুলিশ। এর আগে গত রোববার ভোরে দক্ষিণ সুরমার খোঁজারখলার কাজীরবাজার ব্রিজসংলগ্ন সড়কে ছিনতাইয়ের শিকার হন শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক এক ছাত্রী। এ ঘটনায় দু’জনকে আটক করেছে পুলিশ। তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।  

সিলেট আই নিউজ / এসএম

মাই ওয়েব বিট

আপনার ওয়েবসাইটের ভিজিটর মনিটরিং করার জন্য এটা ব্যবহার করতে পারেন, এটি গুগল এনালাইটিক এর মত কাজ করে।

ফেসবুক পেইজ